প্রাইভেট টিউশন নিয়ে কর্মরত শিক্ষকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা! না মানলেই বিপদ, দেখুন।

ফের একবার স্কুল শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশন পড়ানোর বিরুদ্ধে নড়ে চড়ে বসেছে শিক্ষা দপ্তর। এবারে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা নিতে চলেছে শিক্ষা দপ্তর। ইতিমধ্যেই হাইকোর্টের রায় অনুসারে কোন সরকারি শিক্ষক প্রাইভেট পড়াতে পারবেন না। 

এবারে স্কুল শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশন নিয়ে বিরাট আপডেট! বর্তমানে রাজ্য তথা সারা দেশেই বেকার সমস্যা মাথা চাড়া দিয়ে উঠেছে। চাকরির বাজার মোটেই ভালো নয়। এমতাবস্থায় বেকার যুবক যুবতীদের উপার্জনের একটি বড় ভরসার জায়গা হয় প্রাইভেট টিউশন।

কিন্তু প্রাইভেট টিউশনের জায়গায় একটি বড় অংশ দখল করে রেখেছে স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকারা। যার ফলে কাজের সুযোগ হারাচ্ছে বেকার যুবক-যুবতীরা। বিষয়টি নিয়ে বহুদিন ধরে বিরোধ চলছে। রাজ্য সরকার এবং কেন্দ্রীয় সরকার বহুদিন আগেই আইন করে স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকাদের প্রাইভেট টিউশনকে বেআইনি বলে ঘোষণা করেছে।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন মাঝে থাকা প্লে-বাটনে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

প্রাইভেট টিউশন নিয়ে সরকারী আইন-

রাজ্য সরকার বা কেন্দ্রীয় সরকারের কঠোর আইন থাকা সত্ত্বেও, স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকারা নিজের বাড়িতে বা বাড়ি ভাড়া করে দীর্ঘদিন ধরেই প্রাইভেট টিউশন চালিয়ে যাচ্ছিলেন। এর ফলে তারা যেমন সরকারি আইনের উলঙ্ঘন করছেন তেমনি একটা বৃহৎ অংশের যুবক যুবতীদের আয়ের উৎস বন্ধ করে দিয়ে তাদের সাথে বঞ্চনা করছেন মূলত একজন ছাত্র বা ছাত্রী প্রাইভেট হিসেবে একজন বেকার যুবক বা যুবতীর থেকে একজন স্কুল শিক্ষক বা শিক্ষক শিক্ষিকাকেই বেশি গুরুত্ব দিয়ে থাকেন। আর এই সুযোগেরই অপব্যবহার করে চলেছেন একশ্রেণীর শিক্ষক শিক্ষিকারা।

এই বিষয়টির বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্যই 2019 সালে তৈরি হয়েছিল গৃহ শিক্ষক কল্যাণ সমিতি বা PTWA। এই সংগঠনের সৃষ্টি এবং বিস্তারের মূল লক্ষ্যই হলো বেকার যুবক-যুবতী দের মত গৃহ শিক্ষকদের স্বার্থ রক্ষার তাগিদে লড়াই চালিয়ে যাওয়া এবং সরকারি স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকাদের প্রাইভেট টিউশন বন্ধ করার বিরুদ্ধে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়া।

সংগঠনটি বহুদিন ধরেই বিভিন্ন সরকারি দপ্তর ও সেই সব দপ্তরের আধিকারিকদের কাছে দীর্ঘদিন ধরে এই বিষয়টি নিয়ে আবেদন জানিয়ে আসছে। কিন্তু কোন এক পক্ষের গড়ি মসির কারণে বহুদিন ধরে আইন থাকা সত্ত্বেও পরিস্থিতির কোন পরিবর্তন হয়নি।

প্রাইভেট টিউটর ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের রাজ্য সম্পাদক দীপঙ্কর দাস এই রায়ের পরেই জনিয়েছিলেন, তাঁরা  নিজ নিজ এলাকায় টিউশনরত স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকাদের নামের তালিকা তৈরি করবে। এবার হাইকোর্টের নির্দেশ পেয়ে রাজ্য সরকারও কড়া পদক্ষেপ করতে চলেছে। জেলায় জেলায় সেইসমস্ত শিক্ষক শিক্ষিকাদের তালিকা তৈরি করছে স্কুল শিক্ষা দফতর।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

প্রাইভেট টিউশন নিয়ে হাই কোর্টের নির্দেশ-

এবার তাই গৃহশিক্ষক কল্যাণ সমিতি কোমর বেঁধে রাস্তায় নেমেছে। তারা সিদ্ধান্ত নিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের প্রতিটি জেলায় জেলায় Private Tuition করছে এমন স্কুল শিক্ষক এবং শিক্ষিকাদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করবে। এই নিয়ে গত মঙ্গলবার হাইকোর্টে করা গৃহ শিক্ষক কল্যাণ সমিতির কেস নম্বর WPA(P) 112 Of 2021 এর নিষ্পত্তি ঘটেছে।

এই মামলার রায় হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি নির্দেশ দিয়েছেন কোনোভাবেই স্কুল শিক্ষক-শিক্ষিকারা বাড়িতে প্রাইভেট টিউশনি চালিয়ে যেতে পারেন না। তিনি আরো নির্দেশ দিয়েছেন এই মামলায় জড়িত সমস্ত বিদ্যালয় এবং সংশ্লিষ্ট শিক্ষক-শিক্ষিকার বিরুদ্ধে আগামী তিন মাসের মধ্যে শিক্ষা বোর্ডকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে।

এদিনের হাইকোর্টের রায়ের ফলে উচ্ছ্বসিত হতে দেখা গিয়েছে সংগঠনের কর্মীদের। তবে তার সাথে সাথে কিছু প্রশ্ন চিহ্ন রয়ে গিয়েছে। অন্যান্য সংগঠন বা বিভিন্ন সময়ে যে সমস্ত স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকাদের বিরুদ্ধে প্রাইভেট টিউশন করার অভিযোগ জমা পড়েছে তাদের বিরুদ্ধে বোর্ড সব প্রণোদিত হয়ে ব্যবস্থা নেবে কিনা তার দায়ভার বোর্ডের উপরেই বর্তায়।

স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড সহজে পেতে দেখুন।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

তাই হাইকোর্টের রায় কতটা কার্যকর হবে তা নিয়ে অনেকেই সন্দিহান। তবে সংগঠনের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যে সরকারি আইন অনেকদিন আগে থেকেই তাদের পক্ষে ছিল এবার হাইকোর্ট ও তাদের পক্ষে নির্দেশ দিল। বোর্ডের উপর শিক্ষক শিক্ষিকাদের নামের তালিকা তৈরি করার দায়ভার থাকা সত্ত্বেও সংগঠন নিজের থেকে রাস্তায় নেমে এই বিষয়টিকে নিয়ে আন্দোলন চালিয়ে যাবে এবং এলাকায় এলাকায় যে সমস্ত স্কুল শিক্ষক শিক্ষিকারা এখনো প্রাইভেট টিউশন চালিয়ে যাচ্ছেন তাদের একটি নামের তালিকা তৈরি করবে।

উপসংহার

এবারে এই প্রাইভেট টিউশন বন্ধ না করলে রাজ্যের শিক্ষা দপ্তর থেকে বিশেষ ব্যবস্থা নেয়া হবে। এই আইন না মানার কারণে আগেও বিভিন্ন স্থানে শো-কজ নোটিশ পাঠানো হয়েছিল। তবে এবারে সরকারের সাথে সাথে প্রাইভেট টিউটর ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন এর সদস্যরা এই তালিকা বানাতে উদ্যোগী হয়েছেন। এই বিষয়ে আপনাদের মতামত জানাতে পারেন কমেন্ট বক্সে।

Post Disclaimers

'whatsupbengal.in' একটি বাংলা অনলাইন ব্লগ নিউজ পোর্টাল। এই নিবন্ধে এবং আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে প্রদত্ত তথ্যগুলি বিশ্বাসযোগ্য, যাচাই করা এবং অন্যান্য বড় মিডিয়া হাউস থেকে নেওয়া হয়েছে তা নিশ্চিত করার জন্য আমরা সমস্ত ব্যবস্থা নিয়েছি। এই ওয়েবসাইটে দেওয়া বিষয়বস্তু শুধুমাত্র তথ্য ও শিক্ষামূলক উদ্দেশ্যে।
যোগাযোগ - wspbengal@gmail.com
নম্বর - 6297256750 (হোয়াটসঅ্যাপ)

আমাদের সাথে যুক্ত থাকুন

*ফেসবুক পেজ - Join Here
*হোয়াটস্যাপ চ্যানেল - Follow Us
*টেলিগ্রাম চ্যানেল - Join Here
*কু অ্যাপ - Like Us
*ট্যুইটার - Follow Us

হ্যালো প্রিয় পাঠকবৃন্দ, আমরা একটি দল হিসেবে কঠোর পরিশ্রম করছি আপনাদের জন্য শুধুমাত্র শিক্ষামূলক উদ্দেশ্যে বিশ্বাসযোগ্য এবং মূল্যবান কন্টেন্ট সরবরাহ করতে। আমরা শিক্ষা, সরকারি স্কিম, সরকারি কর্মচারী, প্রযুক্তি, টেলিকম, দৈনিক আপডেট, আর্থিক বিষয়, ব্যবসার ধারণা, বৃত্তি ইত্যাদি নিয়ে কাজ করছি। আশা করি আপনাদের ভালো লাগবে। প্রতিটি ব্লগ পোস্টের জন্য একটি মূল্যবান মন্তব্য করতে ভুলবেন না। আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ। কোনো প্রয়োজনে আমাদের wspbengal@gmail.com ঠিকানায় লিখুন।

Leave a Comment

Home
জয়েন চ্যানেল
জয়েন গ্রুপ
ফলো পেজ
আপডেট
error: Content is protected !!
Madhyamik Exam – মাধ্যমিক নয়ে জরুরী নির্দেশিকা প্রকাশ পোস্ট অফিসে ডাবল রিটার্ন, এভাবে টাকা জমালেই পাবেন সুযোগ! স্কুল ছুটির ঘোষণা রাজ্যে! টানা ২ দিন বন্ধ থাকছে, দেখুন।